সোহেল খানের ফোনে রক্ষা পেল ৭ জন

সর্বমোট পঠিত : 83 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

সোহেল খান গণমাধ্যমকে বলেন, ‘সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আমি বাসা থেকে বের হচ্ছিলাম। তখন লিফটের সামনে লোকজনের ভিড় দেখে ঘটনা জানতে চাই। তারা জানান ২০ মিনিট ধরে লিফটের দরজা খুলছে না। ভেতরে অনেকে আটকা পড়েছেন। লিফট চালুর কোনো ব্যবস্থা করতে না পেরে আমি ফায়ার সার্ভিসকে জানাই। তারা তিন মিনিটের মধ্যে এসে পৌঁছায় এবং তাদের উদ্ধার করে আনে।’

অভিনেতা সোহেল খানের একটি ফোন কলে রক্ষা পেয়েছে দুই শিশুসহ ৭ জন। বুধবার (২৫ আগস্ট) সকালে রাজধানীর মাটিকাটা এলাকায় বহুতল ভবনের লিফটে আটকে পড়ে দুই শিশুসহ একই পরিবারের ৭ সদস্য। তখন ভবনটির বাসিন্দা অভিনেতা সোহেল খানের ফোনে খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা সেখানে যান এবং তাদের উদ্ধার করেন।

সোহেল খান গণমাধ্যমকে বলেন, ‘সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আমি বাসা থেকে বের হচ্ছিলাম। তখন লিফটের সামনে লোকজনের ভিড় দেখে ঘটনা জানতে চাই। তারা জানান ২০ মিনিট ধরে লিফটের দরজা খুলছে না। ভেতরে অনেকে আটকা পড়েছেন। লিফট চালুর কোনো ব্যবস্থা করতে না পেরে আমি ফায়ার সার্ভিসকে জানাই। তারা তিন মিনিটের মধ্যে এসে পৌঁছায় এবং তাদের উদ্ধার করে আনে।’

কুর্মিটোলা ফায়ার স্টেশনের সিনিয়র স্টেশন অফিসার সফিকুল ইসলাম জানান, মাটিকাটা এলাকার ১৩৪/১ নম্বর লেক ক্যাসেল ভবনের চতুর্থ তলা থেকে নামছিলেন ওই ৭ জন। নিচে নামার পর হঠাৎ লিফট বিকল হয়ে গেলে তারা ভেতরে আটকা পড়েন। প্রতিবেশী ও নিরাপত্তাকর্মীরা অনেক চেষ্টা চালিয়েও উদ্ধার করতে ব্যর্থ হন। পরে তাদের একজন জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরের মাধ্যমে ফায়ার সার্ভিসে বিষয়টি জানান। এরপর কুর্মিটোলা ফায়ার স্টেশনের একটি দল দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে অত্যাধুনিক যন্ত্র হাইড্রোলিক স্প্রেডার ব্যবহার করে তাদের অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করে।

পরে উদ্ধারকৃত একজনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। এ ঘটনায় সোহেল খানের প্রশংসা করেছেন ওই ভবনের বাসিন্দারা।

মন্তব্য

আরও দেখুন

জামালপুর লাইভ টিভি