এক রেটে ইন্টারনেট পাবেন গ্রাহকেরা

ইন্টারনেট
সর্বমোট পঠিত : 54 বার
জুম ইন জুম আউট পরে পড়ুন প্রিন্ট

বৃহস্পতিবার দুপুরে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে নতুন ট্যারিফের উদ্বোধন করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। আগামী পাঁচ বছর ইউনিয়ন পর্যায়েও একই দামে ইন্টারনেট ব্যবহারের পাশাপাশি প্রান্তিক পর্যায়ে ইন্টারনেট সেবা পৌঁছানো সহজ হবে বলে জানায় বিটিআরসি।


ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথে ট্রান্সমিশন সেবার মূল্য নির্ধারণ নিয়ে জটিলতা ছিলো দীর্ঘ দিন ধরে। তাই ট্রান্সমিশন সেবার ট্যারিফ নতুন করে নির্ধারণের উদ্যোগ নেয় বিটিআরসি। এর অংশ হিসেবে এক দেশ, এক রেট বাস্তবায়ন শুরু হয়।

বিটিআরসি নির্ধারিত মূল্য অনুযায়ী সব গ্রাহকের কাছ থেকে ৫ এমবিপিএস ইন্টারনেট সেবার জন্য জন্য সর্বোচ্চ ৫০০ টাকা, ১০ এমবিপিএস এর জন্য ৮০০ টাকা ও ২০ এমবিপিএস এর জন্য ১২০০ টাকা নিতে পারবেন সেবাদানকারীরা।

এতে গ্রাহক পর্যায়ে ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান আইএসপি এবং পাইকারি ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ বিক্রেতা ইন্টারন্যাশনাল ইন্টারনেট গেটওয়ে প্রতিষ্ঠানগুলো এই নির্ধারিত মূল্যের বেশি নিতে পারবেন না।

সারাদেশে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সেবা পৌঁছে দিতে নতুন ট্যারিফ নির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন-বিটিআরসি।

বৃহস্পতিবার দুপুরে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে নতুন ট্যারিফের উদ্বোধন করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। আগামী পাঁচ বছর ইউনিয়ন পর্যায়েও একই দামে ইন্টারনেট ব্যবহারের পাশাপাশি প্রান্তিক পর্যায়ে ইন্টারনেট সেবা পৌঁছানো সহজ হবে বলে জানায় বিটিআরসি।

নতুন ট্যারিফ নির্ধারণের ফলে গ্রাহকদের স্বার্থ রক্ষার পাশাপাশি আইনগত ভিত্তি তৈরি হয়েছে। এছাড়াও যারা অবৈধভাবে ইন্টারনেট ব্যবসা পরিচালনা করতেন তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া সহজ হবে বলে জানান ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

এছাড়াও ইন্টারনেট সেবা নিশ্চিত করতে 'গ্রেড এফ সার্ভিস' চালু করা হয়েছে। যদি কোথাও ৫ ঘণ্টার বেশি সংযোগ বিচ্ছিন্ন থাকে তাহলে সেবাদানকারীর বিরুদ্ধে অভিযোগের সুযোগ পাবেন গ্রাহকেরা।

মন্তব্য

আরও দেখুন

জামালপুর লাইভ টিভি